দেশের শীর্ষ স্থান অর্জনে ডাক্তারহাট বাজার আউটলেট

222 Views

সেন্ট্রাল ডেক্স, দৈনিক নোয়াখালী সময় ডটকম: সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং কনফারেন্স-২০২৪ ঢাকার একটি হোটেলে ২৪ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠান শেষে দেশের শীর্ষ স্থান অর্জনকারীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক জনাব মো: আবুল বশর এবং সভাপতিত্ব করেন সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী জনাব জাফর আলম। অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন ব্যাংকের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক জনাব মুহাম্মদ ফোরকানুল্লাহ, জনাব আব্দুল হান্নান খান ও জনাব মোহাম্মদ হাবীবুর রহমান, এজেন্ট ব্যাংকিং ডিভিশনের প্রধান জনাব মো. মশিউর রহমান, সোনাপুর শাখার ব্যবস্থাপক মোঃ ইসমাইল হোসেন সহ বিভিন্ন বিভাগীয় প্রধানগণ। দেশব্যাপী বিস্তৃত ৩৭০টি এজেন্ট আউটলেটের প্রতিনিধিবৃন্দ সম্মেলনে যোগ দেন।

অনুষ্ঠান শেষে দেশের শীর্ষ স্থান অর্জন করায় নোয়াখালীর অশ্বদিয়া ডাক্তার হাট বাজার এজেন্ট ব্যাংকিং আউটলেট’র স্বত্বাধিকারী ও ম্যানেজার আবদুল কাদের (মিহির)’র হাতে পুরষ্কার তুলে দেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক মোঃ আবুল বশর এবং সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী জনাব জাফর আলম।
এছাড়া্ও ডিপোজিটে দেশের ৪র্থ স্থান অর্জন করায় ডাক্তার হাট বাজার আউটলেট’র স্বত্বাধিকারী ও ম্যানেজারের হাতে আরো ১টি পুরস্কার তুলে দেন অতিথিরা। লিংক শাখা হিসেবে দেশের শীর্ষ স্থান অর্জন করায় সোনাপুর শাখা ব্যবস্থাপক মোঃ ইসমাইল হোসেনের হাতে পুরস্কার তুলে দেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক মোঃ আবুল বশর এবং সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী জনাব জাফর আলম।

সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং কনফারেন্স অনুষ্ঠিত

77 Views

আবদুল কাদের, দৈনিক নোয়াখালী সময় ডটকম: সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং কনফারেন্স-২০২৪ ঢাকার একটি হোটেলে ২৪ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক জনাব মো: আবুল বশর এবং সভাপতিত্ব করেন সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী জনাব জাফর আলম। অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন ব্যাংকের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক জনাব মুহাম্মদ ফোরকানুল্লাহ, জনাব আব্দুল হান্নান খান ও জনাব মোহাম্মদ হাবীবুর রহমান, এজেন্ট ব্যাংকিং ডিভিশনের প্রধান জনাব মো. মশিউর রহমান, সোনাপুর শাখা ব্যবস্থাপক মোঃ ইসমাইল হোসেন সহ বিভিন্ন বিভাগীয় প্রধানগণ। দেশব্যাপী বিস্তৃত ৩৭০টি এজেন্ট আউটলেটের প্রতিনিধিবৃন্দ সম্মেলনে যোগ দেন।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক জনাব মোঃ আবুল বশর উল্লেখ করেন যে, এজেন্ট ব্যাংকিং কার্যক্রম সঠিকভাবে পরিচালনার জন্য বাংলাদেশ ব্যাংক ২০১৭ সালে এজেন্ট ব্যাংকিং গাইডলাইন প্রণয়ন করেছে। সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক দক্ষতার সাথে এজেন্ট আউটলেট পরিচালনা করছে উল্লেখ করে তিনি বলেন এখন পর্যন্ত এখানে কোনো অপ্রত্যাশিত ঘটনা ঘটেনি। তিনি সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংককে এজন্য ধন্যবাদ জানান।
সভাপতির বক্তব্যে সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী জনাব জাফর আলম বলেন যে, ব্যাংকের উপশাখা ও এজেন্ট আউটলেটের মধ্যে তেমন পার্থক্য নেই। এজেন্ট আউটলেটসমূহ থেকেও গ্রাহকগণ বিনিয়োগ সুবিধা নিতে পারছেন। রেমিট্যান্স আহরণে এজেন্টরা অনেক ভালো করছে। গণ মানুষের ব্যাংক হিসেবে সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক সকল শ্রেণি-পেশার মানুষের জন্য বেশ কিছু সেবাপণ্য চালু করেছে। এজেন্ট আউটলেটের মাধ্যমে গ্রাহকগণ সহজেই এসব সেবা গ্রহণ করতে পারছেন।

বেগমগঞ্জে বাবার জানাজা শেষে ছেলের মৃত্যু

72 Views

আবু রায়হান সরকার,দৈনিক নোয়াখালী সময় ডট কমঃ নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে বাবার জানাজার ছয় ঘন্টা পর ছেলের মৃত্যু হয়েছে। এতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।বৃহস্পতিবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ২টার দিকে উপজেলার মিরওয়ারিশপুর ইউনিয়নের ৪নম্বর ওয়ার্ডের খেজুরতলা এলাকার ছানা উল্যাহ চাপরাশি বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।নিহতের ছোট ছেলে মো.সুমন জানান, তার বাবা আনার উল্যাহ (৬৮) দীর্ঘদিন হার্টের সমস্যায় ভুগছিলেন। এরপর লিভার নষ্ট হয়ে গতকাল বুধবার দিবাগত রাত ১২টার দিকে নিজ বাড়িতে মারা যান। বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।বাবার জানাজা শেষ হওয়ার সাথে সাথে আমার বড় ভাই মাসুদ রানার (৪৬) হার্ট অ্যাটাক করে। পরে তাকে নোয়াখালীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে দুপুরের দিকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেওয়ার পথে দুপুর ২টার দিকে মতলব এলাকায় সে মারা যায়। নিহত মাসুদ রানা পেশায় একজন সিএনজি চালক এবং সে ২ সন্তানের জনক ছিল।মিরওয়ারিশপুর ইউনিয়নের ৪নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য(মেম্বার) শামসুর রহমান বলেন, বাবার মৃত্যুর শোকে তার ছেলে মাসুদ হার্ট অ্যাটাকে আক্রান্ত হয়ে মারা যান।চৌদ্দ ঘণ্টার ব্যবধানে বাবা–ছেলের মৃত্যুতে স্থানীয় এলাকাবাসী শোকাহত।

নোয়াখালী পুলিশ লাইন্স মাঠে রেঞ্জ ডিআইজি গোল্ডকাপ কাবাডি টুর্ণামেন্টের বাছাই উদ্বোধন 

146 Views

মোঃরেজাউল করিম রাজু,মাল্টিমিডিয়া এডিটর,দৈনিক নোয়াখালী সময় ডট কমঃনোয়াখালীতে চট্টগ্রাম রেঞ্জ ডিআইজি গোল্ডকাপ কাবাডি টুর্ণামেন্ট-২০২৪ এর জেলা পর্যায়ের বাছাই পর্বের শুভ উদ্বোধন হয়েছে ।বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০ টায় নোয়াখালী পুলিশ লাইন্স মাঠে বেলুন ও ফেস্টুন উড়িয়ে শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন নোয়াখালীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ইব্রাহিম।চট্টগ্রাম রেঞ্জ ডিআইজি গোল্ডকাপ কাবাডি টুর্ণামেন্টে নোয়াখালী জেলার বাছাই পর্ব ম্যাচে নোয়াখালী জেলার বিভিন্ন থানার টিম অংশগ্রহণ করেন।
উদ্বোধনী ম্যাচে উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোঃ মোর্তাহীন বিল্লাহ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (বেগমগঞ্জ সার্কেল) মোহাম্মদ নাজমুল হাসান রাজিব সহ বিভিন্ন ইউনিট হতে আগত পুলিশ সদস্যগণ ও ক্রীড়ামোদি দর্শকবৃন্দ।বাছাইপর্বে প্রদর্শিত নৈপুণ্যের উপর ভিত্তি করে নোয়াখালী জেলার বিভিন্ন থানা হতে ১৩ জন খেলোয়াড়কে বাছাই করা হবে। আগামী ১৮-২০ ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রামে অনুষ্ঠিতব্য চট্টগ্রাম রেঞ্জ ডিআইজি গোল্ডকাপ কাবাডি টুর্ণামেন্ট-২০২৪ এর মুল পর্বে নোয়াখালী জেলার এই কম্পোজিট কাবাডি টিম অংশগ্রহণ করবেন।

শুভ জন্মদিন

186 Views

শুভ জন্মদিন
প্রিয় বেলাল চৌধুরী
মহাপরিচালক,শুল্ক রেয়াত ও প্রত্যর্পণ পরিদপ্তর,ঢাকা।
জন্মদিনে আপনার জন্য আন্তরিক শুভেচ্ছা অভিনন্দন ও ভালোবাসা রইলো।দোয়া করি সামনে এগিয়ে যাওয়ার জন্য আল্লাহ যেন আপনার মনের সকল আশা পূর্ণ করে দেন।এমনই জীবন তুমি করিবে গঠন মরিলে হাসিবে তুমি কাঁদিবে ভুবন। শুভ হোক আপনার জন্মদিন💝 জন্মদিন উপলক্ষে নাসির উদ্দিন বাদল প্রকাশক ও সম্পাদক নোয়াখালী থেকে প্রকাশিত “দৈনিক নোয়াখালী সময়” ও অনলাইন নিউজ পোর্টাল পরিবারের পক্ষ থেকে আপনার সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করি৷

হাবিব উল্লাহ ডন বলেন:বাংলাদেশের সকল ব্যবসায়ীদেরকে এলসি খোলার সুযোগ দিতে হবে

155 Views

ন্যাশনাল ডেক্স,দৈনিক নোয়াখালী সময় ডট কমঃ ডলারসংকটের প্রভাব পড়েছে রিকন্ডিশন্ড গাড়ি আমদানিতে। ব্যবসায়ীরা বলছেন, একদিকে ডলারের দাম বৃদ্ধি; অন্যদিকে এলসি খুলতে শতভাগ মার্জিন আরোপের কারণে রিকন্ডিশন্ড গাড়ি আমদানির ব্যাপক পতন হয়েছে।তাদের মতে, ডলারের দাম বৃদ্ধির কারণে আগের চেয়ে কমপক্ষে ৩০ শতাংশ দাম বেড়েছে। বর্ধিত দামের ফলে দেশে গাড়ি বিক্রি ৭০ থেকে ৮০ শতাংশ কমে গেছে।ফলে রিকন্ডিশন্ড গাড়ির বিক্রি তলানিতে পৌঁছেছে।রিকন্ডিশন্ড গাড়ি ব্যবসার বর্তমান সমস্যা,এ থেকে উত্তরণসহ নানা বিষয় নিয়ে নোয়াখালীর সময় কথা বলেছে রিকন্ডিশন্ড গাড়ি আমদানিকারকদের সংগঠন বারভিডার সাবেক সভাপতি হাবিব উল্লাহ ডনের সঙ্গে। সাাৎকার নিয়েছেন দৈনিক নোয়াখালী সময় পত্রিকার অর্থনৈতিক রিপোর্টার।নোয়াখালী সময়: রিকন্ডিশন্ড গাড়ির ব্যবসা কেমন চলছে? হাবিব উল্লাহ ডন: বর্তমানে রিকন্ডিশন্ড গাড়ির ব্যবসা ভালো যাচ্ছে না। করোনা মহামারির বছর থেকে রিকন্ডিশন্ড গাড়ির ব্যবসায়ে ধস নামে। করোনা কমতে থাকলে এ ব্যবসা কিছুটা ঘুরে দাঁড়ায়। এর রেশ না কাটতেই ২০২২ সালের ফেব্রæয়ারিতে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ শুরু হলে আবারও এ ব্যবসায় নেতিবাচক প্রভাব পড়তে থাকে। নোয়াখালী সময়: রিকন্ডিশন্ড গাড়ির ব্যবসা খারাপ হওয়ার অন্যতম কারণ কী বলে আপনি মনে করেন? হাবিব উল্লাহ ডন: মূলত ডলার সংকটের কারণে রিকন্ডিশন্ড গাড়ির ব্যবসা একেবারে তলানিতে ঠেকেছে। আগে যে পরিমাণে বিক্রি হয়েছে, এখন তার অর্ধেকও বিক্রি হয় না। ডলার সংকটের কারণে প্রান্তিক ব্যবসায়ীরা এলসি বা ঋণপত্র খুলতে পারছেন না।এলসি খুলতে না পারলে গাড়ি আমদানি কীভাবে হবে?নোয়াখালী সময় : অভিযোগ উঠেছে, অনেক প্রভাবশালী ব্যবসায়ী এলসি খুলে রিকন্ডিশন্ড গাড়ি আমদানি করছেন। এ বিষয়ে আপনার মন্তব্য কি? হাবিব উল্লাহ ডন: অভিযোগটি সত্য। প্রভাবশালী ব্যবসায়ীরা এলসি খোলার সুযোগ পাচ্ছেন। তবে তারাও যে তাদের চাহিদামতো আনতে পারছেন তা কিন্তু নয়। গাড়ির চাহিদা অনুযায়ী এলসি খুলতে পারছেন না। ফলে গাড়ির আমদানি কমে গেছে। এভাবে বেশি দিন চলতে থাকলে আমাদের ব্যবসা গুটিয়ে ফেলতে হবে।নোয়াখালী সময়:আন্তর্জাতিক বাজারেও রিকন্ডিশন্ড গাড়ি বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে। ফলে সরবরাহে ঘাটতি দেখা দিয়েছে। এ বিষয়ে আপনার বক্তব্য কী? হাবিব উল্লাহ ডন:ঠিক বলেছেন। পাঁচ বছর ব্যবহৃত গাড়ি জাপান থেকে আমাদের দেশের ব্যবসায়ীরা কিনে এনে দেশের মধ্যে বিক্রি করে থাকেন। করোনার পর ডলার সংকটের কারণে এরই মধ্যে অনেক বড় বড় গাড়ি উৎপাদনকারী আন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠান উৎপাদন কমিয়েছে। এতে করে নতুন গাড়ির দাম বেশি পড়ছে। নতুন গাড়ি ব্যবহারের পর বেশি দামে বিক্রি করছে তারা। ফলে ব্যবহৃত গাড়ি যখন আমরা কিনতে যা”িছ, তখন বেশি দামে কিনতে হচ্ছে। আমদানি খরচ বেশি পড়ায় দেশের মধ্যে গাড়ির দাম বেশি পড়ছে। ফলে ক্রেতাকে বাধ্য হয়েই বেশি দাম দিতে হচ্ছে।নোয়াখালী সময় : ডলার সংকটের কারণে সরকার রিকন্ডিশন্ড গাড়ি আমদানি নিরুৎসাহিত করেছে। এ বিষয়ে আপনার মতামত কী ? হাবিব উল্লাহ ডন: সরকার বিলাসপণ্যের আমদানিকে নিরুৎসাহিত করার জন্য এলসি মার্জিন ১০ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ১০০ শতাংশ করেছে। আগে কোনো পণ্য আমদানি করতে হলে ব্যাংকে পণ্যমূল্যের ১০ শতাংশ টাকা জমা দিতে হতো। এখন পুরো টাকাটাই জমা দিতে হচ্ছে। ফলে বড় ধরনের আর্থিক চাপ তৈরি হয়েছে আমদানিকারকদের ওপর। কোনো কোনো ব্যাংক ব্যবসায়ীদের সমস্যা বিবেচনায় না এনে এলসি মার্জিন আরও বাড়িয়ে ১৫০ শতাংশও দাবি করছে। এমন পরিস্থিতিতে রিকন্ডিশন্ড গাড়ির ব্যবসা বন্ধ হওয়ার পথে। নোয়াখালী সময়: সরকারের কাছে গাড়ি আমদানি শুল্ক কমানোর আবেদন করেছেন? হাবিব উল্লাহ ডন: একদিকে যেমন ডলারের দাম বেড়েছে, তেমনি শুল্ক-করও বেড়েছে। বাড়তি শুল্ক গাড়ির দাম বাড়াতে ভূমিকা রেখেছে। আগে ডলারের দাম ছিল ৮৫ টাকা। এখন বেড়ে হয়েছে ১২৬/ ১২৭ টাকা। আগে ৮৫ টাকার ওপর শুল্ক দিতে হতো ১৩০ শতাংশ। এখন ১২৬/১২৭ টাকার ওপর দিতে হচ্ছে। ফলে গাড়ির দাম ব্যাপক বেড়েছে। নোয়াখালী সময়: আসন্ন বাজেটে রিকন্ডিশন্ড গাড়ি ব্যবসা ঘুরে দাঁড়াতে কী দাবি করবেন? হাবিব উল্লাহ ডন: বেশকিছু দাবি আছে। তার মধ্যে অন্যতম দাবি এলসি মার্জিন আগের মতো করতে হবে। সবাইকে এলসি খোলার সুযোগ দিতে হবে। আমদানি শুল্ক কমাতে হবে এবং পাঁচ বছরের বেশি পুরোনো গাড়ি আমদানির সুযোগ দিতে হবে। নোয়াখালী সময়: গাড়ি আমদানি ও বিক্রি কমে যাওয়ায় সরকারের রাজস্ব আদায়ে কী প্রভাব পড়েছে? হাবিব উল্লাহ ডন: গাড়ি আমদানি ও বিক্রি কমে যাওয়ায় রিকন্ডিশন্ড গাড়ি খাত থেকে রাজস্ব আদায় কমেছে। আগে বছরে রিকন্ডিশন্ড গাড়ি খাত থেকে চার হাজার থেকে পাঁচ হাজার কোটি টাকার রাজস্ব পেত। এখন তার অর্ধেকে নেমে এসেছে। এনবিআর যদি রিকন্ডিশন্ড গাড়ির খাত থেকে আগের মতো রাজস্ব আদায় করতে চায়, তবে আগামী বাজেটে যে হারে টাকার অবমূল্যায়ন হয়েছে, সেই হারে শুল্ক কমাতে হবে।

নোয়াখালীর পৌরসভায় ২৪১ জন ছাত্র-ছাত্রীর মাঝে বৃত্তি প্রদান

120 Views

মোজ্জামেল হোসেন কামাল,দৈনিক নোয়াখালী সময় ডট কমঃনোয়াখালী পৌর মেয়র সরকারি প্রাথমিক বৃত্তি-২০২৩ এর বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার ও নগদ অর্থ বিতরণ করা হয়েছে।এ উপলক্ষে আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে পৌর মেয়র শহিদ উল্যাহ খান সোহেলের সভাপতিত্বে নোয়াখালী পৌরসভার আয়োজনে পৌর ভবন চত্বরে বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠান ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।  অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ২৪১ জন বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের প্রত্যেকের মাঝে ক্রেস্ট, প্রাইজবন্ড, সার্টিফিকেটসহ পুরস্কার তুলে দেন নোয়াখালী পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আসাদুজ্জামান। পৌরসভার ২৯টি স্কুলের শিক্ষার্থীরা এতে অংশগ্রহণ করেন।এ সময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) নাজিমুল হায়দার, প্যানেল মেয়র রতন কৃষ্ণপাল, নোয়াখালী প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আবু নাছের মঞ্জু, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আকবর হোসেন সোহাগ, সদর উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারসহ ছাত্র-ছাত্রী, অভিভাবক, পৌরসভার কাউন্সিলর ও জেলায় কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।  

জাবিতে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে দলবেঁধে ধর্ষণ: ঘটনার যে বিবরণ দিল র‌্যাব

67 Views

ন্যাশনাল ডেক্স,দৈনিক নোয়াখালী সময় ডট কমঃ
র‌্যাব বলছে, ঘটনার ‘মূল পরিকল্পনাকারী’ মামুনের বিরুদ্ধে মাদক আইনে আটটি মামলা রয়েছে এবং জেলে গেছেন চারবার।জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মীর মশাররফ হোসেন হলে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে দলবেঁধে ধর্ষণের ঘটনার ‘মূল পরিকল্পনাকারী‘মামুনুর রশিদ মামুন একজন বহিরাগত এবং মাদক কারবারি বলে জানিয়েছে র‌্যাব।এ বাহিনীর আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন বলছেন, মামুন প্রায় ২০ বছর আগে ঢাকার জুরাইন এলাকায় পোশাক কারখানায় চাকরি করতেন। তার বিরুদ্ধে মাদক আইনে আটটি মামলা রয়েছে এবং জেলে গেছেন চারবার।বুধবার রাতে ঢাকার ফার্মগেট এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৪৪ বছর বয়সী মামুনকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। আর নওগাঁ সদর এলাকায় থেকে গ্রেপ্তার করা হয় তার সহযোগী মুরাদ হোসেনকে৷ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সহসম্পাদক মুরাদ আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের শিক্ষার্থী। তার বাড়ি নওগাঁর পত্নীতলা উপজেলার আমন্ত গ্রাম।গত শনিবার রাতে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মীর মশাররফ আবাসিক হলে ‘এ’ ব্লকের ৩১৭ নম্বর কক্ষে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে কৌশলে বোটানিক্যাল গার্ডেনে নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের ৪৫তম ব্যাচের শিক্ষার্থী এবং বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান, তার পরিচিত মামুনসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে।ওই ঘটনায় ভুক্তভোগীর স্বামী ছয়জনকে আসামি করে আশুলিয়া থানায় ‘নারী ও শিশু নির্যাতন দমন’ আইনে মামলা করেন। বিক্ষোভে উত্তাল হয়ে ওঠে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস।মামলার প্রধান আসামি মোস্তাফিজসহ চারজনকে গ্রেপ্তার করার পর মামুন ও মুরাদকে গ্রেপ্তার করা হয় বুধবার রাতে। এ বিষয়ে বিস্তারিত জানাতে বৃহস্পতিবার কারওয়ানবাজারে র‌্যাবের মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলনে আসেন কমান্ডার খন্দকার আল মঈন।আসামিদের জিজ্ঞাসাবাদের বরাতে তিনি বলেন, পোশাক কারখানায় চাকরি করার সময় মাদকের কারবারে জড়িয়ে পড়েন মামুন। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের কিছু মাদকসেবী শিক্ষার্থীর সঙ্গে তার সখ্য তৈরি হয়। কারখানার চাকরি ছেড়ে ২০১৭ সাল থেকে পুরোপুরি মাদক ব্যবসায়ী বনে যান।“সে কক্সাবাজারের টেকনাফ থেকে প্রতি মাসে কয়েক দফায় প্রায় ৭ থেকে ৮ হাজার ইয়াবা সংগ্রহ করে তা জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের আশপাশের এলাকাসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের বেশকিছু মাদকসেবি শিক্ষার্থীকে সরবরাহ করত। এভাবেই মামলার ১ নম্বর আসামি মোস্তাফিজুর রহমানসহ বেশ কয়েকজন সিনিয়র শিক্ষার্থীর সাথে তার সখ্য তৈরি হয়। মাঝে মাঝে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রাবাসে গিয়ে সে রাত্রিযাপন করত এবং অন্যদের সাথে মাদক সেবন করত।”র‌্যাব বলছে, একই এলাকায় থাকার কারণে ভুক্তভোগী তরুণীর স্বামীর সঙ্গে ৩ থেকে ৪ বছর আগে মামুনের পরিচয় হয়। ওই তরুণীর স্বামীকে দিয়েও বিশ্ববিদ্যালয়সহ আশপাশের এলাকায় মাদক সরবরাহ করাতেন বলে জিজ্ঞাসাবাদে দাবি করেছেন মামুন।কিছুদিন আগে মামুনের থাকার জায়গা নিয়ে সমস্যা হলে ওই তরুণীর স্বামীকে ফোন করে তিনি জানান, কিছুদিন তাদের বাসায় থাকবেন। এরপর তাদের ভাড়া বাসায় প্রায় চার মাস সাবলেট থাকেন মামুন।র‌্যাব কর্মকর্তা মঈন বলেন, “মোস্তাফিজুর ঘটনার আগে মামুনের কাছে অনৈতিক কাজের ইচ্ছা প্রকাশ করেছিল। পরিকল্পনা অনুযায়ী মামুন ৩ ফেব্রুয়ারি বিকালে ভুক্তভোগীর স্বামীকে ফোন দিয়ে জানায়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের এক বড় ভাই হলে থাকার ব্যবস্থা করে দিয়েছে, সে এখন থেকে হলে থাকবে। মোস্তাফিজের সাথে পরিচয় করিয়ে দেওয়ার জন্য ওই তরুণীর স্বামীকে বিশ্ববিদ্যালয়ে এসে দেখা করতে বলে মামুন।“সে অনুযায়ী সেদিন সন্ধ্যার দিকে মীর মশাররফ হোসেন হলের ৩১৭ নম্বর কক্ষে যান মেয়েটির স্বামী। মামুন সেখানে তাকে মোস্তাফিজ, মুরাদ, সাব্বির, সাগর সিদ্দিক ও হাসানুজ্জামানের সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়। এরপর তাকে বলে, সে যেন তার স্ত্রীকে ফোন করে মামুনের ব্যবহৃত কাপড়গুলো নিয়ে একটি ব্যাগে ভরে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের গেটের সামনে দিয়ে যায়।”
র‌্যাব বলছে, স্বামীর কথায় রাত ৯টার দিকে মামুনের ব্যবহৃত পোশাক ব্যাগে ভরে বিশ্ববিদ্যালয়ের মীর মশাররফ হোসেন হলের সামনে যান ওই তরুণী। মামুন ও মোস্তাফিজ ওই ব্যাগ মেয়েটির স্বামীর হাতে দিয়ে ৩১৭ নম্বর রুমে রেখে আসতে বলে। মেয়েটির স্বামী ওই রুমে গেলে মুরাদ তাকে আটকে রাখেন। আর মামুন ও মোস্তাফিজ মেয়েটিকে হলের পাশে নির্জন স্থানে নিয়ে ‘পর্যায়ক্রমে ধর্ষণ’ করে।মঈন বলেন, “তারা ওই ভুক্তভোগীকে ভয়ভীতি দেখিয়ে বাসায় চলে যেতে বলেন, পরে হলের কক্ষে ফিরে তার স্বামীকেও বাসায় চলে যেতে বলেন।”ধর্ষণের অভিযোগে মামলা হওয়ার পরদিনই প্রধান আসামি মোস্তাফিজুর রহমানকে সাভার থানা এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। এরপর গ্রেপ্তার হন সাব্বির হাসান, সাগর সিদ্দিকী এবং হাসানুজ্জামান। তাদেরকে গত ৪ ফেব্রুয়ারি তিন দিনের রিমান্ডে নেয় পুলিশ।মোস্তাফিজুর বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি আকতারুজ্জামান সোহেলের অনুসারী হিসেবে ক্যাম্পাসে পরিচিত। ধর্ষণের ঘটনায় তাকে বহিষ্কার করেছে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ।

বৃত্তি প্রদানে নোয়াখালী পৌর মেয়র

104 Views

নোয়াখালী সময় ডেক্স,দৈনিক নোয়াখালী সময় ডট কমঃ
নোয়াখালী পৌরসভা কর্তৃক প্রদত্ত পৌর মেয়র সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে বৃত্তি পরীক্ষায় অংশ নিয়ে বৃত্তিপ্রাপ্ত ৪৩৭ জন শিক্ষার্থীর মধ্যে চেক, সার্টিফিকেট ও পুরস্কার দেওয়া হয়েছে।মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে পৌর ভবন চত্বরে বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠান ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।হরিনারায়ণপুর ইউনিয়ন উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এবিএম আব্দুল আলিমের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পৌর মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শহিদ উল্যাহ্ খান সোহেল। আলোচনা সভা শেষে বৃত্তিপ্রাপ্তদের মধ্যে চেক, সার্টিফিকেটসহ পুরস্কার তুলে দেওয়া হয়।
এসময় পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডের কাউন্সিলরগণসহ জেলা কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।